Alapon

সত্যিকারার্থে বাংলাদেশে মুসলমানরাই সংখ্যালঘু!


দিন কয়েক আগে ফেসবুকে এক ভারতীয় হিন্দু বন্ধুর সাথে কথা হচ্ছিল। কথাবার্তার এক পর্যায়ে ভারতের এনআরসি এবং দিল্লীর মুসলিম হত্যাকান্ড নিয়ে কথা হচ্ছিল। সে এনআরসি এবং দিল্লীর হত্যাকান্ডের জন্য বাংলাদেশকে দায়ী করল।

তার কথায় খুবই অবাক হলাম। জিজ্ঞেস করলাম, বাংলাদেশ দায়ী হয় কীভাবে?

তখন সে বলল, তোমরা তোমাদের দেশে সংখ্যালঘু হিন্দুদের উপর নির্যাতন করছো বলেই না ভারতে মুসলিমদের উপর তার প্রতিশোধ গ্রহণ করা হচ্ছে। আমরা পত্র-পত্রিকায় দেখি, বাংলাদেশে হিন্দুদের উপর কীরূপ নির্যাতন চালানো হচ্ছে!

তার কথায় এক গাল হেসে নিলাম। তারপর বললাম, শোনো, তোমাকে আমার জীবনের একটি ঘটনা বলি।

সময়টা ২০১৫ সালের শুরুর দিকে! তখন বাংলাদেশে আওয়ামী লীগ সরকার বিরোধী আন্দোলন চলছিল। সেইসময় সন্ধ্যার পর সারাদেশে প্রায় অঘোষিত কারফিউ জারি হতো। একসাথে কয়েকজন তরুণ ঘোরাঘুরি করলেই পুলিশ তাদের চ্যালেঞ্জ করতো এবং নামাজি হলে আর রক্ষে নেই; সোজা শ্রীঘরে।

সেসময় একদিন আমরা কয়েকজন বন্ধু সন্ধ্যায় ঘুরতে বেরিয়েছিলাম। আমাদের মধ্যে একজন বন্ধু বলল, এই পথ দিয়ে কিন্তু প্রায়ই পুলিশের গাড়ি যায়। তারপর আমাদের বয়সি দেখলেই চেক করে। নামাজি মনে হলে শিবির ভেবে ধরে নিয়ে যায়। তার কথায় সবাই বিরাট চিন্তায় পড়ে গেল।

আমাদের মধ্যে ছিল একজন হিন্দু। তাকে একদম টেনশন ফ্রি দেখা গেল। আমরা জিজ্ঞেস করলাম- কী রে তোর টেনশন লাগছে না? তখন সে একগাল হেসে দিয়ে বলল- আরে আমার কীসের টেনশন! পুলিশ আসলে প্যান্টের জিপার খুলে বলব, এই দেখুন আমি হিন্দু।

অর্থাৎ সে হিন্দু বলেই নিরাপদ। আর আমরা বাংলাদেশের মত মুসলিম প্রধান দেশে মুসলমান হওয়ার পরও নিরাপদ নই।

ভারতের দিল্লীতে মুসলিমদের দিনের আলোয় ধরে ধরে হত্যা করা হয়েছে, তাদের বাড়িতে লুটপাট করা হয়েছে, অগ্নি সংযোগ করা হয়েছে। অন্যদিকে বাংলাদেশে প্রায়ই ক্রসফায়ারের ঘটনা ঘটলেও বর্তমান সরকারের আমলে খুব সম্ভবত একজন হিন্দু অপরাধীকেও গ্রেফতার করা হয়নি। রাজনৈতিক কারণে যত হত্যাকান্ডের ঘটনা ঘটেছে তার মধ্যে বিশ্বজিৎ হত্যাকান্ডের বিচার হয়েছে। কারণ, সে ছিল হিন্দু; সংখ্যালঘুল। কিন্তু রাজনৈতিক কারণে বহু মুসলমান নিহত হওয়ার পরও অধিকাংশেরই কোনো বিচার হয় না।

এমনকি গতকাল রাতেও নোয়াখালীতে কুরআনের এক হাফেজকে ক্রসফায়ারে হত্যা করেছে পুলিশ।

মুসলিম প্রধান বাংলাদেশে আজ মুসলিমরাই নির্যাতিত! অন্যদিকে সেই নির্যাতনকে ব্যবহার করে আখের গোছাচ্ছে সুবিধাভোগিরা। সত্যিকারার্থে বাংলাদেশে মুসলমানরাই সংখ্যালঘু।

পঠিত : ১৯৯ বার

ads

মন্তব্য: ০